Bhalukanews.com

নওগাঁর সাপাহারে বেড়িবাঁধ ভেঙ্গে প্রায় ৩ হাজার পরিবার পানি বন্দি

ব্রেলভীর চৌধুরী, নওগাঁ জেলা প্রতিনিধিঃ ভারত থেকে নেমে আসা ঢলে নওগাঁর সাপাহার উপজেলার পাতাড়ী ইউনিয়নের পূর্নভবা নদীর ৭টি বেড়িবাঁধ ভেঙে যায়। এতে ওই ইউনিয়নের প্রায় ৩হাজার পরিবার পানি বন্দি হয়ে পড়েছে। নদীর গর্ভে বিলিন হয়েছে ৫শতাধিক পরিবারের ঘরবাড়ী। হাজার হাজার বিঘা জমির ধান, সবজি ক্ষেত, পুকুর, পান বরজ, আমের বাগান তলিয়ে গেছে।

জানা গেছে, পাতাড়ী ইউনিয়নের জালশুকা, তিলনী, আদাতলা, পাতাড়ী, হাড়িপাল, কাউয়াভাষা, করমুডাঙ্গা, মির্জাপুর, তিলন ভাবুক সহ বেশ কয়েকটি গ্রামের প্রায় ৩হাজার পরিবার পানি বন্দী হয়ে পড়েছে। এসব এলাকায় বিশুদ্ধ পানি ও খাবার তীব্র সংকট সহ চর এলাকা গুলোর যোগাযোগ ব্যবস্থা ভেঙ্গে পড়েছে। এসব এলাকার দুর্গত মানুষরা গরু, ছাগল, হাঁস-মুরগি নিয়ে বন্যা আশ্রয় কেন্দ্র ও বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে আশ্রয় নিয়েছে।

খবর পেয়ে মঙ্গলবার বিকেলে নওগাঁ-১ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য বাবু সাধন চন্দ্র মজুমদার, উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব শামসুল আলম শাহ চৌধুরী, উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফাহাদ পারভেজ বসুনীয়া সহ প্রশাসনের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ ক্ষতিগ্রস্থ্য এলাকাগুলি পরিদর্শন করেন। বুধবার বিকেলে ক্ষতিগ্রস্থ্য পরিবারের মাঝে প্রশাসনের পক্ষ থেকে ত্রান বিতরণ করেন নওগাঁ-১ আসনের জাতীয় সংসদ সদস্য বাবু সাধন চন্দ্র মজুমদার।

পাতাড়ী ইউনিয়ন চেয়ারম্যান মুকুল মিঞা জানান, জরুরী ভাবে বন্যায় আটকে পড়া পরিবারগুলোকে উদ্ধার করে নিরাপদ আশ্রয় কেন্দ্রে রাখার ব্যবস্থা করা হয়েছে।

উপজেলা কৃষি অফিসার এএফএম গোলাম ফারুক হোসেন জানান, বন্যায় পাতাড়ী ইউনিয়নে ৪৮০ হেক্টর আউস, ২৫০০ হেক্টর রোপা আমন এবং ১০৬ হেক্টর শাক-সব্জি সহ সর্বমোট ৩৮৬ হেক্টর ফসল ক্ষতি হয়েছে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) ফাহাদ পারভেজ বসুনীয়া জানান, প্রশাসনের পক্ষ থেকে পানি বন্দী পরিবারগুলোর মাঝে চিকিৎসা, শুকনো চিড়া, চিনি, চাউল সহ বিভিন্ন খাবার বিতরন করা হয়েছে। জরুরি ভিত্তিতে ক্ষতি গ্রস্থ্যদের তালিকা তৈরীর কাজ চলছে। ইতোমধ্যে পানিবন্দি পরিবারগুলোর প্রাথমিক তথ্য উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়েছে। ক্ষতিগ্রস্থ্য পরিবারগুলিকে সব ধরনের সহযোগীতা করা হবে বলেও তিনি জানান।

*

*

Top