Bhalukanews.com

নিবিড় যত্নে বড় হচ্ছে হস্তিশাবক “বনমাধুরী”

এস এম সোহেল রানা শ্রীপুর, (গাজীপুর) প্রতিনিধি ঃগাজীপুরের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কে দেশের ইতিহাসে প্রথম জন্মনেওয়া হাতি নিবিড় যতেœ বড় হচ্ছে হস্তিশাবক “বনমাধুরী”। শাবকের নাম রাখা হয়েছে “বনমাধুরী”। গত ৮ সেপ্টেম্বর শুক্রবার সকালে পরিবেশ ও বন মন্ত্রণালয়ের সচিব ইসতিয়াক আহমদ এর উপস্থিতিতে এই নাম নির্ধারণ করা হয়। বর্তমানে হাতি শাবকের জন্য বিশেষ যতেœর ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। মা হাতির পর্যাপ্ত খাদ্যের চাহিদা পূরণের মাধ্যমে বনমাধূরীর প্রাকৃতিক খাদ্যগ্রহণ নিশ্চিত করা হচ্ছে।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কের সহকারী ভেটেরিনারী সার্জন নিজাম উদ্দিন চৌধুরী জানান, মুক্তিরাণী নামের মা হাতিটি গত ২৭ আগস্ট রোববার সুস্থ একটি মেয়ে বাচ্চার জন্ম দেয়। বাংলাদেশে বদ্ধ পরিবেশে হাতির বাচ্চা প্রসবের ঘটনা এটাই প্রথম। সে সময় মা হাতিটি বাচ্চাকে নিয়ে বেশিরভাগ সময় বনের ভেতর অবস্থান করতো। বর্তমানে বাচ্চাটি যথেষ্ট পরিণত হওয়ায় অন্য হাতির সাথে মিশছে। বাচ্চাটিও স্বাচ্ছন্দে ঘুরে বেড়াচ্ছে। জন্মের ৪বছর পর থেকে হাতির বাচ্চা কলাগাছ, মিষ্টি কুমড়া ও অন্যান্য স্বভাবজাত খাবার খাওয়া শুরু করে।

পার্কের ওয়াইল্ড লাইফ সুপারভাইজার সরোয়ার হোসেন খান জানান, হাতি শাবকের জন্মের পর থেকেই হাতিটি কিছুটা আগ্রাসী আচরণ করছে। তাই এর বাসস্থানের আশপাশে বেড়া দিয়ে রাখা হয়েছে। দর্শনার্থীরা নিরাপদ দূরত্ব থেকে হাতি দেখার সুযোগ পাচ্ছে।

সহকারী বন সংরক ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কের তত্ত্বাবধায়ক শাহাবুদ্দিন জানান, পার্কে কোন প্রাণীর জন্ম হলে উর্দ্ধতন কর্তৃপরে পরামর্শে নামকরণ করা হয়। তারই ধারবাহিকতায় হস্তিশাবকের নাম রাখা হয়েছে। শুক্রবার হাতি শাবক পরিদর্শন শেষে বন ও পরিবেশ মন্ত্রণালয়ের সচিব ইসতিয়াক আহমেদ ও উপ-প্রধান বন সংরক শাসছুল আজম এই নামকরণ করেন। হস্তিশাবকের মায়ের নাম “মুক্তিরাণী” ও বাবা সের বাহাদুর।

*

*

Top