Bhalukanews.com

ফরিদপুরে প্রাথমিকের নৈশ্য প্রহরি নিয়োগে বিলম্ব ও অনিয়মের অভিযোগ

ফরিদপুর প্রতিনিধ : ফরিদপুরের আলফাডাঙ্গা উপজেলার প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নৈশ্য প্রহরি নিয়োগে দীর্ঘ সময় ক্ষেপন ও অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে।
নাম প্রকাশের অনিচ্ছুক এক নিয়োগ প্রার্থী বলেন, বিভিন্ন স্কুলের নৈশ্য প্রহরি নিয়োগের ক্ষেত্রে সংশ্লিষ্ট স্কুলগুলোর প্রধান শিক্ষক ও ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি সঙ্গে নিয়োগ কমিটির আর্থিক লেন-দেনে বনি-বনা না হওয়ায় এবং স্থানীয় সরকার দলীয় প্রভাবশালীদের হস্তক্ষেপের কারনেও বিলস্ব হচ্ছে ।
আলফাডাঙ্গা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস সূত্রে জানা যায়, ২০১৫ সালের প্রথম দিকে ১৩টি বিদ্যালয়ের জন্য নৈশ্য প্রহরি নিয়োগের সার্কুলার দেওয়া হয়। পরে ওই নিয়োগ প্রক্রিয়া বিপরীতে মামলা হলে দুই বছর এর কার্যক্রম বন্ধ থাকে। মামলা জটিলতা শেষে পূনরায় ২০১৭ সালের নতুন করে সাকুলার দেওয়া হয়। এই সার্কুলারের ১৩টি পদের বিপরীতে ১০৮ টি আবেদন করে জমা পড়েছে।
নিয়োগ কমিটির সভাপতি ও উপজেলার নির্বাহী অফিসার জয়ন্তি রুপা রায় বলেন, প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নৈশ্য প্রহরি নিয়োগ বিষয়টি চলমান রয়েছে। অনিয়নের বিষয়ে তিনি বলেন, এই নিয়োগে কোনো অনিয়ম হয়নি। তবে মামলা সংক্রান্ত কারনে নিয়োগ প্রক্রিয়া বিলম্বিত হয়েছে।
আলফাডাঙ্গা উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা ও নিয়োগ কমিটির সদস্য সচিব মোছা: ফেরদৌসী বেগম এ প্রসঙ্গে বলেন, সরকারি বিধি মোতাবেক নিয়োগ প্রক্রিয়ার কাজ এগিয়ে চলছে। আশা করছি অল্প দিনের মধ্যেই এই নিয়োগ চুড়ান্ত হবে।
আলফাডাঙ্গা উপজেলার প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সভাপতি শিয়াবুল ইসলাম এ বিষয়ে বলেন, দীর্ঘদিন স্কুলগুলোতে নৈশ্য প্রহরি নেই। এই কারেন বিদ্যালয়গুলোর অরক্ষিত থাকে। তিনি দাবি জানিয়ে বলেন, নৈশ্য প্রহরি নিয়োগে বিলম্ব না করে দ্রুত যোগ্যদের নিয়োগ দেওয়া হোক ।

*

*

Top