Bhalukanews.com

আবারও সংশোধনী হচ্ছে শিল্পপার্ক প্রকল্প

অনলাইন ডেস্ক; ঢাকা: দ্বিতীয় দফায় ব্যয় বাড়ছে বিসিক শিল্পপার্ক, সিরাজগঞ্জ প্রকল্পে। মূল প্রকল্পটির ব্যয় ছিল ৩৭৮ কোটি ৯২ লাখ টাকা। পরবর্তীতে প্রথম সংশোধনীতে ব্যয় বাড়িয়ে মোট ব্যয় ধরা হয়েছিল ৪৮৯ কোটি ৯৬ লাখ টাকা। বর্তমানে আরেক দফা ব্যয় বাড়িয়ে দ্বিতীয় সংশোধনীতে করা হচ্ছে ৬২৮ কোটি ১০ লাখ টাকা। সেই সঙ্গে বাড়ছে মেয়াদও।

গত জুন মাসে প্রকল্পটি বাস্তবায়নের কথা থাকলেও এখন তিন বছর সময় বাড়িয়ে প্রকল্পের মেয়াদ করা হচ্ছে ২০১৯ সালের জুন পর্যন্ত। এ-সংক্রান্ত একটি সংশোধনী প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে পরিকল্পনা কমিশনে। অন্যদিকে দীর্ঘ সময় পেরিয়ে গেলেও গত জুন মাস পর্যন্ত প্রকল্পটি বাস্তবায়নে ব্যয় হয়েছে ১০২ কোটি ২৩ লাখ টাকা। আর্থিক অগ্রগতি দাঁড়িয়েছে ২০ দশমিক ৮৬ শতাংশ।

পরিকল্পনা কমিশন সূত্র জানায়, ইতোমধ্যেই প্রকল্পটির প্রক্রিয়াকরণ শেষ হয়েছে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) আগামী সভায় অনুমোদনের জন্য উপস্থাপন করা হতে পারে।

প্রকল্পটির মূল উদ্দেশ্য হচ্ছে, শিল্পায়নের মাধ্যমে গ্রামীণ অর্থনীতি পুনরুজ্জীবিতকরণের জন্য সিরাজগঞ্জে ৪০০ একর আয়তনবিশিষ্ট একটি শিল্পপার্ক স্থাপন ২০১৯ সালের মধ্যে ৮২০টি শিল্প প্লটের উন্নয়ন করা হবে।
শিল্পপার্কে বেসরকারি শিল্প উদ্যোক্তাদের জন্য ৫৭০টি শিল্প ইউনিট স্থাপনের জন্য শিল্প স্থাপনের উপযোগী অবকাঠামো তৈরি, সেবা এবং বিভিন্ন উপযোগী সুযোগ-সুবিধা সৃষ্টি করা হবে।

শিল্পপার্কে শিল্প ইউনিট স্থাপনের মাধ্যমে প্রায় ১ লাখ লোকের সরাসরি কর্মসংস্থান সৃষ্টি করে আয় বৃদ্ধির মাধ্যমে দারিদ্র্য এবং আঞ্চলিক বৈষম্য দূর করা হবে।

স্থানীয় ও বৈদেশিক বিনিয়োগ আকর্ষণের মাধ্যমে শিল্পপার্কে ৫৭০টি রফতানিমুখী এবং আমদানি বিকল্প শিল্পপার্ক ইউনিট স্থাপনের উদ্যোগ নিয়েছে শিল্প মন্ত্রণালয়।

প্রকল্পের প্রধান কার্যক্রমগুলো হচ্ছে, ৪০০ একর ভূমি অধিগ্রহণ ও ভূমির উন্নয়ন, শিল্প প্লট তৈরি বিতরণ, বনায়ন, ডাইক বাঁধ নির্মাণ, তিনতলা অফিস ভবন, পাম্প হাউসসহ পাম্প ড্রাইভার কোয়ার্টার নির্মাণ, রাস্তা নির্মাণ, ২০ একর আয়তনবিশিষ্ট লেক নির্মাণ, পানি, গ্যাস ও বিদ্যুৎ সরবরাহ লাইন স্থাপন এবং ড্রেনেজ ব্যবস্থা নির্মাণ।

*

*

Top