বিভাগীয় খবররাজশাহী

ইউপি সদস্য কর্তৃক গৃহবধূ ধর্ষণ: মামলা তুলে নিতে হুমকি

পাবনা: পাবনার সুজানগরে ইউপি সদস্য কর্তৃক গৃহবধুকে ধর্ষণ চেষ্টা ও শ্লীলতাহানির অভিযোগে দায়েরকৃত মামলা তুলে নিতে বাদিনীকে মারধর ও হত্যার হমকি দিয়েছে আসামী দুলাই ইউনিয়ন পরিষদের নবনির্বাচিত ইউপি সদস্য মো: ময়েজ উদ্দিন শেখ ও তার লোকজন।

নির্যাতনের স্বীকার নারগিস খাতুন জানান, গত শনিবার রাতে ইউপি সদস্য মো: ময়েজ উদ্দিন শেখ আমার শয়ন কক্ষে প্রবেশ করে আমাকে জোর পূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা চালায় এবং ইচ্ছার বিরুদ্ধে আমার শ্লীলতা হানি ঘটায়।

এসময় আসামীর সঙ্গে থাকা শহর মোল্লা পিতা-মৃত সোলে মোল্লা, মজনু মিয়া পিতা-মৃত রশিদ মিয়া সাং-চরচিনাখড়া ও মনছের পিতা-মোসলেম শেখ, ময়েন পিতা-মৃত আব্দুল মোল্লা, জাহাঙ্গির পিতা-হাবিল মিয়া, সর্বসাং-চিনাখড়া আসামীরা আমাকে ও বৃদ্ধ মাকে মারপিট করিয়া ইউপি সদস্যকে ছিনিয়ে নেয়। এ ব্যাপারে আমি সুজানগর থানায় মামলা নং-১০ ধারা ২০০০ সালের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন (সংশোধনী/০৩) এর ১০/৩০ ধারায় ইউপি সদস্য ময়েজ শেখসহ ছয় জনের বিরুদ্ধে এজাহার দায়ের করি।

এতে আসামীরা ও তাদের লোকজন ক্ষিপ্ত হয়ে সোমবার রাতে ইউপি সদস্য ময়েজ শেখের সঙ্গি চিনাখড়া গ্রামের আয়ুব মোল্লা পিতা-মৃত আব্দুল মোল্লা, শিপন মোল্লা পিতা-আয়ুব মোল্লা, আ: ছালাম পিতা-মৃত দানেজ রাত আনুমানিক ৯.৩০টার সময় আমার বাড়িতে প্রবেশ করিয়া আমাকে শারিরীক ভাবে লাঞ্চিত করে এবং মামলা তুলে নিতে প্রান নাশের হমকি দেয়। হমকির কারনে বাদিনী নার্গিস খাতুন পরিবারের সদস্যদের নিয়ে নিরাপত্তা হীনতায় ভূগছেন। উল্লেখ্য বাদিনীর স্বামী বিদেশে থাকায় তাকেই মামলা পরিচালনা করতে হচ্ছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button